গলার মাপ নেওয়ার পর তিহাড়ে কেঁদে উঠলেন নির্ভয়ার-দোষীরা

3431

ওয়েব ডেস্ক, ১৩ জানুয়ারিঃ তিহার কারাগারে নির্ভয়ার অপরাধীদের ফাঁসি দেওয়ার প্রস্তুতি শুরু হয়ে গেছে। ফাঁসি মঞ্চে ডামি দিয়ে ফাঁসির অনুশীলনের আগে চার আসামির গলার মাপ নেওয়া হয়েছে। গলার মাপ অনুসারে, জেল প্রশাসন ফাঁসির দড়ি প্রস্তুত করবে। তাই চার আসামির গলার মাপ, তাদের উচ্চতা এবং ওজন পরিমাপ করা হয়েছে।এই প্রক্রিয়া চলাকালীন চারজন অপরাধী কেঁদেছেন বলে জানিয়েছে কারাগার কর্তৃপক্ষ।সূত্রের খবর, যে সময় অপরাধীদের গলার মাপ নেওয়া হচ্ছিল, সেই সময় তাদের চারজনই কেঁদেছেন। সামনে মৃত্যুকে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখে মানসিকভাবে ক্রমশ ভেঙে পড়ছেন এই চারজন।

গতকাল মক ফাঁসি হয়। চার দোষীর ওজন অনুযায়ী বস্তাগুলিতে রাবিশ ভরা হয়েছিল। ফাঁসির দড়ি ইতিমধ্যে তৈরি করেছে বিহারের বক্সার জেল।এক জেল আধিকারিক জানান, দিল্লির আদালত মৃত্যু পরোয়ানা জারি করার পর চারজনের আচরণে তেমন পরিবর্তন ধরা পড়েনি। তিনি বলেন, ‘হয়ত ওরা এখনও বুঝে উঠতে পারেনি বা ওদের আশা, ওদের ফাঁসির উপর স্থগিতাদেশ দেবে আদালত।’ যদিও প্রস্তুতির তুঙ্গে রয়েছে জেল কর্তৃপক্ষ। ইতিমধ্যে চারজনকে ফাঁসির পুরো প্রক্রিয়া জানিয়ে দেওয়া হয়েছে।

আপাতত চারজন তিহাড়ের ২ ও ৪ নম্বর জেলে আলাদভাবে চারজন রাখা হয়েছে। দুটি সিসিটিভির মাধ্যমে তাদের উপর ২৪ ঘণ্টা নজরদারি চালানো হয়। পাশাপাশি, দু-তিনজন কারারক্ষী সর্বদা নজরদারি চালান। সুপ্রিম কোর্টের রায়ের পর তাদের একসঙ্গে তিন নম্বরে জেলে সরানো হবে বলে জানান ওই জেল আধিকারিক।

দিল্লির পাটিয়ালা হাউস কোর্ট এর নির্দেশ অনুযায়ী ২২শে জানুয়ারি সকাল সাতটায় নির্ভয়ার চার অপরাধীকেও পার করতে হবে এই কঠিন মৃত্যু পথ। এসবের ভাবনায় তারা কারাগারে বসে কাঁদছে দিনের বিভিন্ন সময়।