“সব ডিগ্রি ভুয়ো”, শুভেন্দুকে শিক্ষাগত যোগ্যতা নিয়ে তীব্র কটাক্ষ অখিল গিরির

159

ওয়েব ডেস্ক, ২৯ নভেম্বরঃ বরাবরই শুভেন্দু অধিকারীর বিরোধী নেতা হিসাবে পরিচিত তিনি। মেদিনীপুরের এই ভূমিপুত্র বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ভরসার পাত্র। একুশের নির্বাচনের কঠিন লড়াইয়ে নিজের গড় ধরে রেখেছেন। তাই তিনি আজ রাজ্যের মৎস্যমন্ত্রী। হ্যাঁ, তিনি তৃণমূল কংগ্রেসের রামনগরের বিধায়ক অখিল গিরি। এবার দলীয় সভায় যোগ দিয়ে ফের রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীকে তুলোধনা করলেন তিনি।

ঠিক কী বলেছেন অখিল গিরি?‌ রবিবার এক দলীয় সভায় বিধায়ক অখিল গিরি বলেন, ‘‌রাজ্যের বিরোধী দলনেতা এত বড় বড় কথা বলেন। তিনি মুখ্যমন্ত্রীকে ‘মূর্খ’ বলে বেড়ান। তা ওঁ তো বিশাল পণ্ডিত! ওঁকে বরং সকলের সামনে শিক্ষাগত যোগ্যতার শংসাপত্র দেখাতে বলুন। সব ডিগ্রি তো ভুয়ো। দম থাকলে কাগজ দেখান। আমি খোলা চ্যালেঞ্জ করছি। আমি দায়িত্ব নিয়ে বলছি, রাজ্যের বিরোধী দলেনতা বিহার থেকে জাল শংসাপত্র আনিয়েছেন। ‌রাজ্যের মন্ত্রীর এমন দাবিতে গোটা জেলায় শোরগোল পড়ে গিয়েছে। বিরোধী দলনেতার শিক্ষাগত যোগ্যতার শংসাপত্র জাল!‌ এই নিয়ে রীতিমতো চর্চা শুরু হয়েছে। যদিও এই নিয়ে এখনও মুখ খোলেননি বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। আগেও তিনি শুভেন্দু অধিকারীর বিরুদ্ধে সুর চড়িয়েছিলেন। দুর্নীতির অভিযোগ তুলেছিলেন। তারপরই নানা তদন্ত শুরু হয়েছে।

এবার সরাসরি শুভেন্দু অধিকারীর জাল শিক্ষাগত যোগ্যতা নিয়ে মন্ত্রী সরব হওয়ায় নতুন করে গোটা রাজ্যে শাসক–বিরোধী সংঘাতের ছায়া দেখা যাচ্ছে বলে মনে করছেন রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা। এই মন্তব্যের পর শুভেন্দু অধিকারী মানহানির মামলা করতে পারে বলে সূত্রের খবর। যদিও তাতে ভাবিত নন রাজ্যের মৎস্যমন্ত্রী অখিল গিরি।