বলরামপুরে বিজেপি কার্যালয়ে হামলার অভিযোগ, তৃণমূলের বিরুদ্ধে

459

তুফানগঞ্জ ১৯ অক্টোবরঃ ফের রাজনৈতিক উত্তেজনা কোচবিহার বলরামপুরে। শনিবার সাত সকালে ওই এলাকায় বোমাবাজির ঘটনা ঘটে। অভিযোগ এদিন ভোর রাতে তৃণমূল আশ্রিত সমাজ বিরোধীরা বিজেপির স্থানীয় কার্যালয়ে আক্রমণ চালায়। এর ফলে বিজেপির দলীয় কার্যালয়ে ক্ষতিগ্রস্থ হয়।

বলরামপুর এলাকায় শুক্রবার ছিল ভারতীয় জনতা পার্টির গান্ধীর সংকল্প যাত্রা। গত ১৬ অক্টোবর থেকে কোচবিহার জেলায় শুরু হয়েছে এই কর্মসূচী। ‘নতুন ভারত সকলেই বানাই, বাপুর পথে পা মেলাই’ এই স্লোগানকে নিয়ে কোচবিহার জেলাজুড়ে এই সংকল্প চলছে। আগামী ২৫ অক্টোবর পর্যন্ত এই যাত্রা চলবে। ওইদিন সুষ্ঠ ভাবে শেষ হয় বিজেপির এই কর্মসূচী। বলরামপুরের এই যাত্রায় অংশ নেন কোচবিহার লোকসভা কেন্দ্রের সাংসদ নিশীথ প্রামাণিকও। সংকল্প যাত্রা বলরামপুরে সফল ভাবে সম্পন্ন হয় বলে দাবী তৃনমূলদের স্থানীয় নেতৃত্বের আর এরই পরিণীতি বিজেপির  দলীয় কার্যালয়ে আক্রমণ হয়েছে বলে অভিযোগ করেন দলের স্থানীয় নেতারা।

ভারতীয় জনতা পার্টি বলরামপুর মণ্ডল কমিটির আহ্বায়ক তরুণ কুমার মজুমদার বলেন, বিজেপির সফল হওয়া কর্মসূচী দেখে ঈর্ষানিত হয়ে তৃণমূল আশ্রিত কিছু দুষ্কৃতী এই হামলা চালিয়েছে। তার বক্তব্য পায়ের তলার মাটি হারিয়ে তৃণমূল এখন সন্ত্রাসের পথ বেছে নিয়েছে এই এলাকায়। তাদের ভয়ে ভীত সাধারণ মানুষ। এই দুষ্কৃতী দলটি দলীয় কার্যালয়ে বোমাবাজি করে।এদিকে বিজেপি কার্যালয়ে ভাঙ্গচুরের ঘটনায় ওই এলাকায় অশান্ত পরিবেশ তৈরি হয়েছে যদিও বিজেপি কার্যালয়ে ভাঙ্গার যে অভিযোগ উঠেছে তা সম্পূর্ণ ভাবে অস্বীকার করেছে তৃণমূলের স্থানীয় নেতৃত্বে।

এবিষয়ে তৃণমূলের স্থানীয় নেতা জহির মণ্ডল জানান বিজেপির দলীয় কার্যালয়ে ভাঙচুরের ঘটনার সাথে তৃণমূলের কোনো সম্পর্ক নেই। ওটা বিজেপির অভ্যন্তরীণ বিষয়।   দলের অভ্যন্তরীণ গোলমালের জেরেই বিজেপি কর্মীরাই ওদের দলীয় কার্যালয় ভেঙ্গে আমাদের নামে দোষ দিচ্ছে।