পাকিস্তানের নানকানা সাহিব গুরুদ্বারে হামলা, তীব্র নিন্দা ভারতের

273

ওয়েব ডেস্ক, ৪ জানুয়ারিঃ পাকিস্তানে ফের হামলার মুখে গুরুদ্বার। এবার গুরু নানকের জন্মস্থান নানকানা সাহিবে ঘটল ঘটনাটি।নানাকানা সাহিবের স্থানীয়া বাসিন্দারাই ওই গুরুদ্বার লক্ষ্য করে পাথর ছুঁড়তে শুরু করে বলে অভিযোগ। শুক্রবার এই ঘটনার তীব্র নিন্দা করল ভারত। এই ঘটনায় এক বিবৃতি জারি করে বিদেশ মন্ত্রক বলেছে, পড়শি দেশের তীর্থস্থানে হওয়া এই তাণ্ডব ও ভাঙচুরের তীব্র নিন্দা করছে ভারত। অবিলম্বে পাকিস্তান সরকার সে দেশের শিখ ধর্মালম্বীদের নিরাপত্তা ও কল্যাণ নিশ্চিত করুক। সংবাদ সূত্রে জানা গিয়েছে, “স্থানীয় এক কিশোরের নেতৃত্বে এই হামলা চালানো হয়েছে। যার বিরুদ্ধে ওই গুরুদ্বারের এক আধিকারিকের মেয়েকে অপহরণের অভিযোগ উঠেছে।” তবে, এই ঘটনা জানাজানি হতেই ওই জনতাকে আটকাতে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে,বলে খবর।

পঞ্জাবের বিরোধী অকালি দলের বিধায়ক মনজিন্দর সিং একটা ভিডিও প্রকাশ্যে এনেছেন। সেই ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, উন্মত্ত জনতা ওই গুরুদ্বারের বাইরে দাঁড়িয়ে শিখ-বিরোধী স্লোগান তুলছেন। ওই ভিডিও নিজের টুইটারে পোস্ট করে ওই বিধায়ক লেখেন, “নানকানা সাহিব গুরুদ্বারের লাইভ ফুটেজ। দেখতে পাচ্ছি কয়েকজন উন্মত্ত মুসলিম, সাহিবের বাইরে দাঁড়িয়ে শিখ-বিরোধী স্লোগান দিচ্ছেন। অবিলম্বে এই সাম্প্রদায়িক কাণ্ডের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে আমি ইমরান খানকে অনুরোধ করব। সে দেশের শিখ ধর্মালম্বী মানুষদের মনে আস্থা ফেরাতে সক্রিয় হোক পাকিস্তান সরকার।”

নানকানা সাহিব গুরুদ্বারাকে হামলাকারীদের হাত থেকে রক্ষা করার জন্য পাক প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে আবেদন জানিয়ে টুইট করেন পঞ্জাবের মুক্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং। টুইটারে তিনি লেখেন, ‘ইমরান খানের কাছে আবেদন, নানকানা সাহিব গুরুদ্বারে আটকে পড়া ভক্তদের অবিলম্বে উদ্ধারের ব্যবস্থা নিশ্চিত করে ঐতিহাসিক গুরুদ্বারাটি ক্ষতির হাত থেকে রক্ষা করুন।’