কোচবিহারে তৃণমূলের দলীয় কার্যালয় ভাঙচুরের অভিযোগ বিজেপির বিরুদ্ধে

21

কোচবিহার , ২৪সেপ্টেম্বরঃ তৃণমূলের দলীয় কার্যালয় ভাঙচুরের অভিযোগ উঠল স্থানীয় বিজেপি আশ্রিত দুষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে কোচবিহার ২ নং ব্লকের অন্তর্গত পুন্ডিবাড়ির গ্রামপঞ্চায়েতের বড়রাংরসের হাতিধুরা বাজার এলাকায়।স্থানীয় তৃণমূল কংগ্রেস নেতৃত্ব অভিযোগ করে বলেন কিছু বিজেপি আশ্রিত দুষ্কৃতী তাদের ওই দলীয় কার্যালয়ে ভাঙচুর করে। ভেঙ্গে ফেলা হয় দলীয় কার্যালয়ের চেয়ার টেবিল ছিঁড়ে ফেলা পতাকা।

লোকসভা নির্বাচনের ফল প্রকাশের পর থেকেই তৃণমূলের দলীয় কার্যালয়গুলি উপর লাগাতার আক্রমণ চালিয়ে আনছে গেরুয়া শিবির এমনটাই অভিযোগ করে আসছে ঘাসফুল শিবির। সেই আক্রমণ চলছে জেলার সর্বত্রই বলে তাদের অভিযোগ। এবারে এই আক্রমণের হাত থেকে বাদ গেল না কোচবিহারের ২ নং ব্লকও। এবিষয়ে তাদের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগকে অস্বীকার করেছে স্থানীয় বিজেপি নেতৃত্ব। অপরদিকে স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্ব অভিযোগ করেন বিজেপি লোকসভা নির্বাচনে জয়লাভ করার পর থেকেই গোটা কোচবিহার জেলাজুড়েই লাগাতার সন্ত্রাস শুরু করেছে বলে অভিযোগ।

কোচবিহার জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের কার্যকরী সভাপতি পার্থপ্রতিম রায় বলেন, বিজেপি এতদিন মানুষকে ভয় দেখিয়ে ওই এলাকায় রাজনীতি করেছে, কিন্তু ভয়কে উপেক্ষা করে তৃণমূলের ছাতার তলায় ফের একত্রিত হয়েছে মানুষ। সেই ভয় থেকেই আবারও রাতের অন্ধকারে সন্ত্রাস শুরু করেছে তারা। এরই পরিণতি আমাদের দলীয় কার্যালয় আক্রমণ। 

এবিষয়ে কোচবিহার জেলার বিজেপি মুখপত্র উৎপল কান্তি দেব বলেন, এটা তৃণমূলের নিজেদের গোষ্ঠী দ্বন্দ্ব। এই ঘটনার সাথে বিজেপির কোনও রকম যোগ নেই। ওরা বিজেপির নামে মিথ্যা অপপ্রচার রটাচ্ছে।