“মহারাষ্ট্রে সরকার গড়তে না পাড়লে ন্যাড়া হয়ে যাব” এবার নেটিজেনদের তোপের মুখে বিজেপি নেতা

731

ওয়েব ডেস্ক, ১২ নভেম্বরঃ মহারাষ্ট্রে বিধানসভা নির্বাচনের আগে বিজেপি নেতা গৌরভ ভাটিয়া বলেছিলেন যে মহারাষ্ট্রে সরকার গড়বে বিজেপিই। এক সংবাদ চ্যানেলে বসে আরও জোরের সঙ্গে বলেছিলেন, “ফড়নবিশই ফের মুখ্যমন্ত্রী হবেন। না হলে তিনি ন্যাড়া হয়ে যাবেন।” এদিকে সংখ্যাগরিষ্ঠতা থাকা সত্ত্বেও সরকার গড়তে পারেনি বিজেপি। কারণ মুখ্যমন্ত্রী পদের জন্য ঝাঁপিয়েছে শিবসেনা।এ বিষয়ে কোনওভাবেই আপস করেনি তারা।

শনিবার মহারাষ্ট্রের রাজ্যপাল ভগত্‍‌ সিং কোশিয়ারি বৃহত্তম দল বিজেপিকে সরকার গঠনের আবেদন জানান। এই নিয়ে রবিবার বিজেপির কোর কমিটির বৈঠকে আলোচনা হয়। দলের শীর্ষ নেতা চন্দ্রকান্ত পাটিল বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের জানান, মহারাষ্ট্রের মানুষ বিজেপি-শিব সেনা জোটকে স্পষ্ট ইঙ্গিত দিয়েছে। যদিও জোট সরকার গঠনের কোনও ইচ্ছে প্রকাশ না-করে জনাদেশকে অশ্রদ্ধা করেছে উদ্ধব ঠাকরের নেতৃত্বাধীন দল। শিব সেনা চাইলে এনসিপি ও কংগ্রেসের সমর্থন নিয়ে সরকার গড়তে পারে বলেও জানিয়ে দেন পাটিল।পরিস্থিতি এমন যে রাজ্যপালকে হস্তক্ষেপ করতে হচ্ছে।স্বাভাবিকভাবেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ট্রোলের শিকার হচ্ছেন তিনি। এদিকে সোশ্যাল মিডিয়ায় লোকজন গৌরভ ভাটিয়ার চ্যালেঞ্জের কথা স্মরণ করিয়ে দিয়ে বলছেন, তাহলে এবার মাথা মুড়িয়ে নিন ভাটিয়া।

তবে, যাই হোক, বিজেপির পক্ষে মহারাষ্ট্রে সরকার গড়া কার্যত অসম্ভব হয়ে দাঁড়িয়েছে। এই অবস্থায় কি করবেন গৌরভ সে দিকে তাকিয়ে নেট দুনিয়া। মহারাষ্ট্রে সাম্প্রতিক নির্বাচনে ২৮৮টি আসনের বিধানসভা আসনের মধ্যে ১০৫টিতে জিতেছে বিজেপি। শিব সেনা ৫৬টি, এনসিপি ৫৪টি এবং কংগ্রেস ৪৪টি আসনে জয়লাভ করে।