২ মাস পর অবশেষে জামিন পেলেন চিদম্বরম

256

নয়াদিল্লি, ২২ অক্টোবর: সিবিআইয়ের দায়ের করা আইএনএক্স মিডিয়া দুর্নীতির মামলায় শেষ পর্যন্ত জামিন পেলেন দেশের প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী পি চিদম্বরম। মঙ্গলবার সুপ্রিম কোর্ট এই প্রবীণ কংগ্রেস নেতাকে এক লক্ষ টাকার ব্যক্তিগত বন্ডে জামিন মঞ্জুর করে। ২১ আগস্ট চিদম্বরমকে গ্রেফতার করেছিল কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা। গ্রেফতার হওয়ার দু’মাস পর জামিন পেলেন প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী। গত ৫ সেপ্টেম্বর থেকে বিচারবিভাগীয় হেফাজতে ছিলেন প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী। আপাতত তিনি এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেটের হেফাজতেই থাকবেন বলে জানিয়েছে শীর্ষ আদালত।

সুপ্রিম কোর্ট জানিয়েছে, পি চিদাম্বরমকে অন্য কোনও মামলায় প্রয়োজন না হলে মুক্তি দেওয়া যেতে পারে”। এর আগে ওই প্রবীণ কংগ্রেস নেতা দিল্লির তিহার জেলে ছিলেন। গত সপ্তাহে তিহার জেল থেকে তাঁকে ইডির হেফাজতে নিয়ে আসা হয়। কয়েকদিন আগেই এই মামলার চার্জশিট পেশ করে সিবিআই। প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী পি চিদম্বরম ও তাঁর ছেলে কার্তি চিদম্বরমকে ইন্দ্রানী মুখোপাধ্যায় ৫ মিলিয়ন দলার ঘুষ দিয়েছিলেন বলে উল্লেখ করা হয়। ইন্দ্রাণীকে সেখানে ‘রাজসাক্ষী’ হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে।

বিচারপতি জানিয়েছেন, জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সিবিআই তলব করলেই হাজির হতে হবে চিদম্বরমকে। তবে শীর্ষ আদালতে জামিন মিললেও এখনই ঘরে ফেরা হচ্ছে না এই কংগ্রেস নেতার। কারণ আর্থিক তছরুপের মামলায় বর্তমানে তিনি ইডির হেফাজতে রয়েছেন। আদালতের নির্দেশে আপাতত ২৪ অক্টোবর পর্যন্ত তাঁকে ইডির হেফাজতে থাকতে হবে।

সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ জানার পর এদিন স্বস্তি প্রকাশ করেছে চিদম্বরমের পরিবার। ছেলে কার্তি চিদম্বরম বলেছেন, আদালত ও দেশের বিচার ব্যবস্থার উপর তাঁদের আস্থা আছে। কেন্দ্রের নরেন্দ্র মোদি সরকার রাজনৈতিক প্রতিহিংসা মেটাতেই তাঁর বাবাকে ফাঁসিয়েছে। নিশ্চিতভাবেই একদিন আদালতে প্রকৃত সত্য সামনে আসবে।