এনআরসি নিয়ে আতঙ্ক ছড়াচ্ছেন, দিলীপ ঘোষকে গ্রেফতার করা উচিত: সেলিম

18

ওয়েব ডেস্ক, ২২ সেপ্টেম্বরঃ আত্মহত্যায় প্ররোচনা দেওয়ার অভিযোগে দিলীপ ঘোষ কে গ্রেফতার করা উচিত। জলপাইগুড়িতে এনআরসি প্রতিরোধ জনসভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে এমনই বিস্ফোরক মন্তব্য করলেন সিপিআইএম নেতা তথা প্রাক্তন সাংসদ মহম্মদ সেলিম।

গতকাল জলপাইগুড়ি রবীন্দ্রভবনের মাঠে এনআরসি প্রতিরোধ সভার আয়োজন করা হয়েছিল। সেখানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় থেকে শুরু করে দিলীপ ঘোষ পর্যন্ত সকলকেই তীব্র ভাষায় আক্রমণ করেন মহম্মদ সেলিম।প্রতিবাদ করেন জাতীয় নাগরিকপঞ্জিরও।

সেলিম বলেম, “ময়নাগুড়ি অন্নদা রায় সহ আরো বেশ কয়েকজন এন আর সি গুজবে আত্মঘাতী হয়েছেন। এই গুজব ছড়াচ্ছেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। প্রতিদিন তিনি বিভিন্ন সভায় বলে বেড়াচ্ছেন ২ কোটি মানুষ কে বাংলা থেকে তাড়াবো। রাজ্য সরকারের উচিত তার বিরুদ্ধে নির্দিষ্ট ধারায় মামলা রুজু করা ৷”

যাদবপুর প্রসঙ্গেও মুখ খোলেন সেলিম। তিনি জানান, “বাবুল সুপ্রিয় যাদবপুরে সেদিন স্রেফ নাটক করেছে। আর তাঁকে ঘিরে নাটক করেছেন রাজ্যপাল। এই ধরণের ‘আমি আক্রান্ত’ নাটক আগে করতেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এখন করে বিজেপি। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের জমানায় এখন অভিযুক্তরা বেকসুর খালাস পেয়ে যায়।”

উল্লেখ্য, গত বৃহস্পতিবার যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে সঙ্ঘ পরিবারের ছাত্র সংগঠন এবিভিপির অনুষ্ঠানে গিয়ে একদল অতি বামপন্থী পড়ুয়ার প্রবল বিক্ষোভের মুখে পরেন বাবুল। ‘গো ব্যাক’ স্লোগান শুধু শোনেননি, বিক্ষোভকারীদের হাতে কিল, চড়, ঘুসিও খেয়েছেন। প্রায় সাড়ে ছ’ ঘণ্টা আটকে থাকার পর রাজ্যপাল জগদীপ ধনকর গিয়ে তাঁকে উদ্ধার করেন৷