শোভন গৃহবন্দি হলে বাড়িতেই হাসপাতালের মতো ব্যবস্থা রাখার তোড়জোড় বৈশাখীর

151

ওয়েব ডেস্ক, ২১ মেঃ আদালতের রায় এখনও জানা যায়নি। তবে শোভন চট্টোপাধ্যায়কে সিবিআই-এর নজরদারিতে গৃহবন্দি রাখা হতে পারে ধরে নিয়েই বাড়িতে হাসপাতালের মতো পরিষেবার ব্যবস্থা রাখতে তোড়জোড় শুরু করে দিয়েছেন শোভন-বান্ধবী বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়।

শুক্রবার হাই কোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ সিবিআই-এর হাতে গ্রেফতার ৪ নেতা-মন্ত্রীকে গৃহবন্দি রাখার নির্দেশ দিলেও পরে বৃহত্তর বেঞ্চ গঠন করে শুনানি শুরু হয়েছে। সেখানেও গৃহবন্দির রায় মিলতে পারে এমন সম্ভাবনা ধরে নিয়েই বাড়িতে চিকিৎসার ব্যবস্থা করছেন বৈশাখী। তিনি জানিয়েছেন, ‘‘শোভনদার চিকিৎসার জন্য ইতিমধ্যেই অক্সিজেন কনসেন্ট্রেটর কেনার চেষ্টা শুরু করেছি। নেবুলাইজারের ব্যবস্থাও রাখছি। আমি হাসপাতালের মতো ব্যবস্থা রাখার সব রকম চেষ্টা করব।’’

আদালতের রায় এখনও জানা যায়নি। তবে শোভন চট্টোপাধ্যায়কে সিবিআই-এর নজরদারিতে গৃহবন্দি রাখা হতে পারে ধরে নিয়েই বাড়িতে হাসপাতালের মতো পরিষেবার ব্যবস্থা রাখতে তোড়জোড় শুরু করে দিয়েছেন শোভন-বান্ধবী বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়।

শুক্রবার হাই কোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ সিবিআই-এর হাতে গ্রেফতার ৪ নেতা-মন্ত্রীকে গৃহবন্দি রাখার নির্দেশ দিলেও পরে বৃহত্তর বেঞ্চ গঠন করে শুনানি শুরু হয়েছে। সেখানেও গৃহবন্দির রায় মিলতে পারে এমন সম্ভাবনা ধরে নিয়েই বাড়িতে চিকিৎসার ব্যবস্থা করছেন বৈশাখী।

এদিন একটি নামীদামী অনলাইন সংবাদ মাধ্যমকে তিনি জানিয়েছেন, ‘‘শোভনদার চিকিৎসার জন্য ইতিমধ্যেই অক্সিজেন কনসেন্ট্রেটর কেনার চেষ্টা শুরু করেছি। নেবুলাইজারের ব্যবস্থাও রাখছি। আমি হাসপাতালের মতো ব্যবস্থা রাখার সব রকম চেষ্টা করব।’’।

প্রসঙ্গত, সিবিআই গ্রেফতার করে প্রেসিডেন্সি জেলে পাঠানোর পরে অসুস্থ হয়ে পড়েন শোভন। তিনি এখন এসএসকেএম হাসপাতালের উডবার্ন ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে, শোভনের সিওপিডি-র সমস্যা রয়েছে। সেই সঙ্গে যকৃৎ ও রক্তে শর্করার সমস্যা বেড়ে যাওয়ায় তার চিকিৎসাও চলছে। বুকে ব্যথা এবং উচ্চ রক্তচাপ রয়েছে শোভনের। শুক্রবার থেকে শুরু হয়েছে বুক ধড়ফড়ও।