ভারত বনাম শ্রীলঙ্কা টি-২০: বছরের প্রথম ম্যাচ বাতিল

189

ওয়েব ডেস্ক, ৬ জানুয়ারিঃ বৃষ্টির জেরে রবিবার গুয়াহাটিতে ভেস্তে গেল ভারত বনাম শ্রীলঙ্কার মধ্যে প্রথম টি-২০ ম্যাচ। বৃষ্টির কারণে এ দিন মাঠে একটিও বল গড়াল না। বৃষ্টির পূর্বাভাষ থাকলেও ম্যাচ ভস্তে দেওয়ার মতো আকার ধারণের ইঙ্গিত ছিল না৷ উত্তর-পূর্ব ভারতে গত ক’দিন ধরেই মেঘাচ্ছন্ন আবহাওয়া ও বিক্ষিপ্ত বৃষ্টির রেশ এখনও কেটে যায়নি৷ ফলে ম্যাচের সময় হালকা বৃষ্টির সম্ভাবনা ছিলই৷ গ্রাউন্সম্যানরা তৎপরতায় ছিলেন শুরু থেকেই৷ নির্ধারিত সময়ে টস অনুষ্ঠিত হয়৷ ম্যাচ শুরুর ঠিক আগে দু’এক ফোঁটা বৃষ্টির ছাট গায়ে লাগতেই দ্রুত পিচ ঢেকে ফেলেন মাঠকর্মীরা৷ গ্রাউন্ড স্টাফরা প্রায় ২ ঘণ্টা মাঠকে খেলার উপযোগী করে তোলার চেষ্টা করলেও তা ফলপ্রসু হয়নি। যার জেরে রাত ১০টার কিছুক্ষণ আগে আনুষ্ঠানিকভাবে ম্যাচ বাতিলের কথা ঘোষণা করা হয়। একরাশ হতাশা নিয়েই ফিরতে হল দর্শকদের।

এই ছ’বছরে ভারতীয় ক্রিকেট এগোলেও শ্রীলঙ্কার সেই গরিমা এখন আর নেই। সঙ্গকারা, জয়বর্ধনেদের উত্তরসূরি উঠে আসেননি সে ভাবে। রবিবার গুয়াহাটিতে শুরু তিন টি-টোয়েন্টির সিরিজে ভারতই ছিল ফেভারিট। আইসিসির টি-টোয়েন্টির ক্রমতালিকায় অবশ্য খুব একটা ভালো জায়গায় নেই বিরাট কোহলি অ্যান্ড কোম্পানি। পাঁচ নম্বরে। শ্রীলঙ্কা সেখানে সাতে।

চলতি বছরেই টি-২০ বিশ্বকাপ। সেই লক্ষ্যে বেশি করে টি২০ ম্যাচ খেলে বিশ্বকাপের আগে দল সাজিয়ে নেওয়াই লক্ষ্য টিম ইন্ডিয়ার। চলতি শ্রীলঙ্কা সিরিজেই যেমন ভুবনেশ্বর কুমার ও দীপক চাহার চোটে নেই। মহম্মদ শামিকে বিশ্রামে পাঠানো হয়েছে। তেমন চোট সারিয়ে এই ম্যাচেই প্রত্যাবর্তন করার কথা ছিল বুমরার।তাঁর সঙ্গী হিসেবে নভদীপ সাইনি ও শার্দুল ঠাকুর কেমন পারফর্ম করেন, সেদিকে নজর ছিল টিম ম্যানেজমেন্টকে।