প্রাথমিকে ফোক গেমস বাধ্যতামূলক করছে রাজ্যের শিক্ষা দফতর

120

বীরভূম, ২০ জানুয়ারিঃ সামাজিক বিবর্তনে হারিয়ে যাচ্ছে আজ খেলার মাঠ। আধুনিকতম এই সময়ে শিশুরা আকৃষ্ট হচ্ছে মোবাইল গেমে। বইয়ের ভারে মাঠের সবুজ ঘাসের সাথে যোগ একেবারেই নেই আজকের প্রজন্মের শিশুদের। আর এর ফলেই শারীরিক ও মানসিক বিকাশের ক্ষেত্রেও যথেষ্ট বাঁধার সম্মুখীন হচ্ছে তারা। একথাকে মাথায় রেখে এবারে বাংলার প্রাচীন খেলা  কানামাছি, চু কিত কিত, কুমির ডাঙা, রুমাল চুরি-সহ বিভিন্ন ধরনের খেলাকে শিশু কিশোরদের মধ্যে বাধ্যতামূলক করতে প্রাথমিকে নিয়ে আসা হচ্ছে ফোক গেমস।

প্রাথমিক পড়ুয়াদের জন্য ওই স্তরে ফোক গেমস বাধ্যতামূলক করবে রাজ্যের শিক্ষা দফতর। এবার জেলার প্রতিটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে খেলা হবে ফোক গেমস। শিশুদের মানসিক ও শারীরিক গঠনে বিশেষ নজর দিতে ও ধরণের সিদ্ধান্ত নিচ্ছে রাজ্য সরকার।

সোমবার বীরভূম জেলার সিউড়িতে একটি সেমিনারে এসে প্রাথমিক শিক্ষা সংসদের রাজ্য সভাপতি মানিক ভট্টাচার্য বলেন, এবার স্কুলের কোন সময় বৃদ্ধি না করেই প্রতিদিন একটি করে ফোক গেমসের ক্লাস হবে এবং সেই ক্লাস করানো বাধ্যতামূলক করা হচ্ছে। ওই খেলার তালিকায় থাকছে কানামাছি, চু কিত কিত, কুমির ডাঙা, রুমাল চুরি-সহ বিভিন্ন ধরনের গেমস৷ মূলত পড়ুয়াদের পঠনপাঠনের পাশাপাশি স্কুল মূখি করার লক্ষ্যেই এই উদ্যোগ বলে মনে করছে শিক্ষানুরাগীরা।