পার্শ্বশিক্ষকদের নিয়ে বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায়ের রায় খারিজ ডিভিশন বেঞ্চে, কী বলছে আদালত?

0
120

খবরিয়া ২৪ নিউজ ডেস্ক, ১৬ অগাস্ট, কলকাতাঃ ২০২২ সালের প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়ায় অংশ নিতে পারবেন না উচ্চ প্রাথমিকের পার্শ্ব শিক্ষকরা। বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের রায় খারিজ করে জানিয়ে দিল কলকাতা হাই কোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ।

বুধবার বিচারপতি সৌমেন সেন ও বিচারপতি উদয়কুমারের ডিভিশন বেঞ্চ জানিয়ে দিয়েছেন, ২০২২ নিয়োগে উচ্চপ্রাথমিকের পার্শ্বশিক্ষকরা আর প্রাইমারি প্যারাটিচার নিয়োগ প্রক্রিয়ায় অংশ নিতে পারবেন না। এই মামলায় এর আগে বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের সিঙ্গল বেঞ্চ নির্দেশ দিয়েছিল উচ্চপ্রাথমিকের পার্শ্বশিক্ষকদেরও পরীক্ষায় অংশ গ্রহণ করতে দিতে হবে।

সেই নির্দেশ চ্যালেঞ্জ করে ডিভিশন বেঞ্চের দ্বারস্থ হন বেশ কিছু প্রাথমিক শিক্ষক পদপ্রার্থী। এদিন সেই বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায়ের সিঙ্গল বেঞ্চের রায় খারিজ করেছে ডিভিশন বেঞ্চ। আদালত জানিয়েছে, দু’টি আলাদা প্রক্রিয়া। সেই কারণে পূর্ববর্তী সিঙ্গল বেঞ্চের রায় খারিজ করা হয়েছে। স্বাভাবিকভাবে আদালতের এই রায়ে বিপাকে বহু নিয়োগপ্রার্থী।

প্রসঙ্গত, ২০২২ সালের ২১ নভেম্বর বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় নির্দেশ দিতে গিয়ে মন্তব্য করেছিলেন, “প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ আইনে এমন কোনও নির্দেশিকা নেই যেখানে প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের ক্ষেত্রে আপার প্রাইমারির পার্শ্বশিক্ষককে নিয়োগ করা যায় না।” তাই বিচারপতি নির্দেশ দেন, প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের ক্ষেত্রে আপার প্রাইমারির প্যারাটিচারদের ১০ শতাংশকে সুযোগ দিতে হবে। সেই রায় এদিন খারিজ হয়ে গেল।

উল্লেখ্য, দিন কয়েক আগেই সুপ্রিম কোর্ট স্পষ্ট জানিয়েছিল, বিএড প্রশিক্ষিতরা প্রাথমিক স্তরে শিক্ষাদানের ক্ষেত্রে অংশগ্রহণ করতে পারবে না। শুধুমাত্র ডি এল এড প্রশিক্ষিতরাই প্রাথমিক স্তরে পড়ানোর যোগ্য। সেই রায়ের সঙ্গে সাজুয্য রেখেই কলকাতা হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চের এদিনের রায় বলে মনে করা হচ্ছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here