মুর্শিদাবাদ লাগোয়া নদিয়ায় সৎকারের জন্য ইলেকট্রিক চুল্লির শিলান্যাস

17

মলয় দে, নদীয়াঃ নদীয়ার পলাশী তেজনগর ঘাটে নদিয়া মুর্শিদাবাদ সহ আশপাশের বিভিন্ন এলাকা থেকে মানুষ আসেন মৃতদেহ সৎকার করার জন্য, দিনে খান পাঁচেক মৃতদেহ এলেই সমস্যায় পরতে হয় সৎকার করতে আসা মানুষজনকে। মৃতদেহ নিয়ে অপেক্ষা করতে হয় ঘন্টার পর ঘন্টা,  তাই এলাকার মানুষ ও শাসন কমিটির দীর্ঘদিনের দাবি ছিল বৈদ্যুতিক চুল্লির।  সেই দাবি মেনেই কালীগঞ্জের বিধায়ক নাসির উদ্দিন আহমেদের তৎপরতায় কৃষ্ণনগরের সাংসদ মহুয়া মৈত্রের উদ্যোগে পলাশী তেজ নগর ঘটে বসতে চলেছে বৈদ্যুতিক চুল্লি। প্রায় দেড় কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত হবে এই বৈদ্যুতিক চুল্লি ।

সোমবার সাংসদ মহুয়া মৈত্র সেই বৈদ্যুতিক চুল্লি শিলান্যাস করলেন। এদিন এই শিলান্যাস অনুষ্ঠানে সাংসদ মহুয়া মৈত্র জানান আগামী 6 মাসের মধ্যেই বৈদ্যুতিক চুল্লি নির্মাণের কাজ শেষ হবে। এদিনের এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বিধায়ক নাসির উদ্দিন আহমেদ, কালিগঞ্জ সমষ্টি উন্নয়ন আধিকারিক উৎপল দাস মুহুরী, কালিগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত আধিকারিক সৌরভ চট্টোপাধ্যায়, আইসি মিরা কৌশিক বিশ্বাস, পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি শেফালী খাতুন, জেলা পরিষদের সদস্য আলিফ আহমেদ, কালিগঞ্জ ব্লক তৃণমূলের যুব সভাপতি কাজল শেখ ব্লক সভাপতি দেবব্রত মুখার্জী, সহ স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্ব। বৈদ্যুতিক চুল্লির দীর্ঘদিনের দাবি পূর্ণ হওয়ায় খুশি এলাকার মানুষ। তাদের দাবি বৈদ্যুতিক চুল্লি সম্পন্ন হলে মৃতদেহ সৎকার করতে আসা মানুষদের হয়রানি অনেকটাই কমবে।