সিএএ ও এনআরসি নিয়ে আদালতে বড়সড় ধাক্কা খেল মমতা

3363

ওয়েব ডেস্ক, ২৩ ডিসেম্বরঃ সিএএ ও এনআরসি নিয়ে কোথাও কোনও বিজ্ঞাপন দিতে পারবে না রাজ্য সরকার। মামলার পরবর্তী শুনানি না হওয়া পর্যন্ত বিজ্ঞাপন দেওয়া যাবে না। সোমবার এমনই নির্দেশ দিল কলকাতা হাইকোর্ট। নাগরিকত্ব আইন ও এনআরসির প্রতিবাদ করে শুরু থেকেই সুর চড়িয়েছিল তৃনমূল। সোমবার আদালতের এই নির্দেশ স্বভাবতই বেশ খানিকটা অস্বস্তি বাড়ল রাজ্যের শাসক দলের।  

মামলার আগামী শুনানি রয়েছে আগামী ৯জানুয়ারি।সেই দিন রাজ্য ও রেল কর্তৃপক্ষকে এই বিষয়ে একটি হলফনামা দিতেও বলেছেন বিচারপতি। রাজ্যের দাবি, তাঁদের বিজ্ঞাপন দেওয়ার অধিকার আছে। পরবর্তী শুনানিতে তাঁরা তাঁদের দাবির স্বপক্ষে যুক্তি দেবে।

এনআরসি ও নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদে শুরু থেকেই কেন্দ্রের বিরোধিতায় একের পর তোপ দেগে চলেছেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী। কেন্দ্রের বিরুদ্ধে বিভাজনের রাজনীতির অভিযোগ তুলে মোদি-শাহের সরকারকে একের পর এক সভা-মিছিলে তুলোধনা করেন তৃণমূল সুপ্রিমো। দলীয় কর্মীদের কেন্দ্রীয় পদক্ষেপ প্রতিবাদে মিছিল, সভা করার নির্দেশ দিয়েছেন তৃণমূলনেত্রী। দলনেত্রীর নির্দেশ মেনেই ইতিমধ্যেই নাগরিকত্ব আইন ও এনআরসির প্রতিবাদে রাজ্যজুড়ে প্রতিবাদ কর্মসূচি পালন করছে তৃণমূল।

তৃনমূল সরকারের এই পদক্ষেপের বিরুদ্ধেই কলকাতা হাইকোর্টে দায়ের হয় মামলা। কেন্দ্রের আইনের বিরুদ্ধে কীভাবে একটি রাজ্য সরকার তা মানা হবে না বলে জানিয়ে সংবাদমাধ্যমে বিজ্ঞাপন দিতে পারে, তা নিয়ে প্রশ্ন তুলতে শুরু করেছেন অনেকে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের এই পদক্ষেপ অসাংবিধানিক বলেও সওয়াল করেন বিজেপি নেতৃত্ব ও একাধিক কেন্দ্রীয় মন্ত্রী।