মাথাভাঙা অলিম্পিক ২০২০ চূড়ান্ত খেলা হল নেতাজী সুভাষ ক্রীড়াঙ্গনে

134

কাজল রায়, মাথাভাঙ্গাঃ নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসুর ১২৪তম জন্মদিন উপলক্ষে মাথাভাঙ্গা মহকুমা শাসকের উদ্যোগে মহাকুমা ক্রীড়া সংস্থার সহযোগিতায় স্থানীয় নেতাজী সুভাষ ক্রীড়াঙ্গনে অনুষ্ঠিত হল মাথাভাঙা অলিম্পিক ২০২০ ফাইনাল খেলা। এই মাথাভাঙ্গা অলিম্পিক খেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের অনগ্রসর শ্রেণী কল্যাণ দফতরের মন্ত্রী বিনয়কৃষ্ণ বর্মন, কোচবিহারের জেলাশাসক পবন কার্ডিয়ান, জেলা পুলিশসুপার ডক্টর সন্তোষ নিম্বালকার, মাথাভাঙ্গা মহকুমা শাসক জিতীন যাদব, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ইন্দ্রজিৎ সরকার, মহাকুমা পুলিশ আধিকারিক শুভেন্দু মন্ডল, পৌরসভার চেয়ারম্যান লক্ষপতি প্রামাণিক প্রমূখ।
এদিন মহাকুমা ক্রীড়া সংস্থার সম্পাদক পরেশ অধিকারী বলেন, আজ সকাল বেলায় ম্যারাথন দৌড় দিয়ে শুরু হয় মাথাভাঙা অলিম্পিক ২০২০। তিনি আরও জানান, এ টিম মাঠে বিভিন্ন ক্রীড়া প্রতিযোগিতার মধ্যে রয়েছে, ১০০ মিটার ২০০ মিটার, হাই জাম্প লং জাম, জ্যাভলিন থ্রো, ডিসকাস থ্রো, সাইকেল রেস প্রভৃতি। একই দিনে অনুষ্ঠিত হবে ব্যাডমিন্টন প্রতিযোগিতা। এই খেলায় যারা প্রথম দ্বিতীয় তৃতীয় স্থান অধিকার করবে তাদেরকে পদক ও সার্টিফিকেট প্রদান করা হয়।
এই প্রথম নতুন আঙ্গিকে মাথাভাঙ্গা অলিম্পিক 2020 অনুষ্ঠিত হচ্ছে। অলিম্পিকে প্রচুর প্রতিযোগী অংশগ্রহণ করে। অলিম্পিক দেখতে নেতাজি সুভাষ ক্রীড়াঙ্গনে প্রচুর দর্শকের ভিড় লক্ষ করা যায়। উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্যে উদ্যোক্তা ও খেলোয়াড়রা অলিম্পিক অংশগ্রহণ ও পরিচালনা করছেন। বিশেষ করে মাথাভাঙার মহকুমাশাসক তথা মহকুমা ক্রীড়া সংস্থার সভাপতি জিতীন যাদবের উদ্যোগে এই অভিনব মাথাভাঙ্গা অলিম্পিক ২০২০ শুরু হয়েছে। মহকুমা শাসকের এই উদ্যোগকে মাথাভাঙার ক্রীড়াপ্রেমী জনসাধারণ প্রশংসা করেছেন। মহকুমা শাসক জানান, ভবিষ্যতে আরও ভালো করে মাথাভাঙ্গা অলিম্পিক করার ভাবনা রয়েছে।