গ্রুপ শীর্ষে থাকা মোহনবাগান ডার্বিতেও তিন এক গোলে জয়ী

50

মলয় দে, নদিয়াঃ “যতবার ডার্বি ততবার হারবি” গতকাল দিনভোর এই শ্লোগানটি একে অপরের জন্য ব্যবহার করে এসেছে লাল হলুদ এবং মেরুনসবুজ দল। দিনভোর বাংলার প্রতিটি প্রান্তের মতন নদীয়াও জল্পনায় কেটেছে ট্রেনে বাসে বাজার হাটে সর্বোত্র।

পাড়ার গলির মোড়ের মাথায় জায়ান্ট স্ক্রিন , টিভির দোকান সর্বত্র সাজো সাজো রব। অবশেষে সেই প্রতীক্ষার সন্ধ্যা ৭:৩০। বাড়িতে খেলা দেখার ব্যবস্থা থাকলেও ছয় থেকে ষাট আবালবৃদ্ধবনিতা সকলে হাজির রাস্তার মাঝে সকল সমর্থকদের সাথে। হোম ম্যাচের পর অ্যওয়ে ম্যাচ থাকার কারণে লাল হলুদের বদলে নীল সাদা  জার্সির রঙ দেখে, দুই-একজন মোহনবাগান সমর্থক জানান, খেলার উত্তেজনার পারদ মাঠে বৃষ্টিস্নাত হয়ে এবং জার্সির রং দেখে কিছুটা সময় জমাট বেঁধে থাকে।

তবে ১৪ মিনিটের মাথায় রয় কৃষ্ণার গোলে সে দুশ্চিন্তা দূর হয়। 42 মিনিটের মাথায় মোহনবাগানেরই তিরির আত্মঘাতী গোলে সমতা ফেরে ইস্টবেঙ্গলের।

এরপর ৭৯ মিনিটের মাথায় ডেভিড উইলিয়ামস গোলে , জেতার ব্যাপারে প্রায় নিশ্চিত হয় মোহনবাগান সমর্থকরা। অবশেষে 89 মিনিটের মাথায় হাভি ফার্নান্ডেজ তৃতীয় গোলটি করে জয় সুনিশ্চিত করে।

বর্তমানে আঠারোটি ম্যাচ খেলে ৩৯ পয়েন্টে গ্রুপ শীর্ষে রয়েছে মোহনবাগান আর তার ফলেই, আগামী এএফসি কাপ সরাসরি খেলার সুযোগ মিলেছে। মুম্বাই 17 টি ম্যাচ খেলে ৩৪ পয়েন্টে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে আপাতত। আগামীতে মুম্বাই এফসি এবং হায়দ্রাবাদ এফসি এই দুটি খেলার দিকে তাকিয়ে সকল ফুটবল প্রেমীরা। তবে মোহনবাগানের ধারাবাহিকতা এভাবেই ধরে রাখতে পারলে জয় সুনিশ্চিত বলেই মনে করেন প্রবীণ খেলোয়াড়রা।