আড়াই বছরের শিশুকে খুন করে প্রেমিকার সাথে পালিয়ে গেল মা

331

ওয়েন ডেস্ক, ২৮ জানুয়ারিঃ বেলেঘাটা ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতে, একই রকম ঘটনার পুনরাবৃত্তি হল চণ্ডীগড়ের বুরেলে।বেলেঘাটায় নিজের ২ নিজের ২ মাসের শিশুকন্যাকে শ্বাসরোধ করে খুন করে সেপটিক ট্যাঙ্কে ফেলে দিয়েছিল মা। পুলিশ তদন্তে নামার পর ওই মহিলা বলেছিলেন তিনি তার শিশুকে খুন করেছে। অবশ্য এর পিছনে মানসিক ভারসাম্যহীনতা ছিল। আর চণ্ডীগড়ে কারণ হিসাবে উঠে এসেছে বিবাহবহির্ভূত সম্পর্ক।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, মৃত সশিশুর বাবার নাম দশরথ। গত রবিবার এই রকম ঘটনা ঘটেছে। রবিবার কাজ করে বাড়ি ফিরে আসে ছেলে ও স্ত্রীকে দেখতে পাননি তিনি। তিনি পেশায় স্থানীয় এলাকাতেই ইলেক্ট্রিক মিস্ত্রি ছিলেন। ছেলে ও স্ত্রীকে দেখতে না পেয়ে তিনি ভাবেন স্ত্রী হয়তো তার ছেলে কে সঙ্গে নিয়ে বাপের বাড়িতে গিয়েছে। কিন্তু সেখানে খোঁজ কতলে জানতে পারে তাঁরা সেখানে নেই। তারপর থেকে শুরু হয় খোঁজাখুঁজি।

জানা গেছে, দশরথ তার স্ত্রীকে বারংবার ফন করলে ওনার স্ত্রী সঙ্গে যোগাযোগ কড়া যাচ্ছিল না। অবশেষে তার স্ত্রীর সঙ্গে তার যোগাযোগ করতে সক্ষম হয়,তখনই অভিযুক্ত ওই মহিলা দশরথকে জানায়, সে ছেলেকে মেরে খাটের বক্সের মধ্যে ঢুকিয়ে রেখে এসেছে ৷ বক্স খুলতেই ছেলের মৃতদেহ পান দশরথ ৷ সঙ্গে সঙ্গে খবর দেন পুলিশকে।

তদন্তে নেমে পুলিশ জানতে পাড়ে বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কের কারণেই নিজের আড়াই বছরের শিশুপুত্রকে খুন করে প্রেমিকের সঙ্গে পালিয়ে গিয়েছে মা ৷ দুই অভিযুক্তকে ধরার চেষ্টা করছে পুলিশ ৷