মুরাদপুর প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দুঃসাহসিক চুরি, তদন্তে পুলিশ

9

পার্থ দাস, বীরভূম: তালা ভেঙে রান্না করার সরঞ্জাম এবং চারটি আলমারি খুলে বিদ্যালয় নথিপত্রসহ বিভিন্ন চুরি করে নিয়ে যায়। ঘটনাটি ঘটেছে বীরভূমের সিউড়ি থানার অন্তর্গত মুরাদপুর প্রাথমিক বিদ্যালয়ে চুরির ঘটনা ঘটে। তবে এই ঘটনা এই প্রথম নয়, গ্রামের মধ্যে স্কুল হয়েও এমন চুরির ঘটনা এর আগেও দুবার ঘটে গেছে। পরপর এইভাবে স্কুলের মধ্যে চোরের হানায় রীতিমত আতঙ্কে পড়ুয়ারা, শিক্ষক থেকে অভিভাবকেরা।

অভিযোগ, সকাল বেলায় দেখতে পায় স্কুলের দরজা ভাঙা। এসে দেখি স্কুলের আলমারি খোলা অবস্থায় রয়েছে, সমস্ত জিনিসপত্র তছনছ করে দেওয়া হয়েছে। স্কুলের মিড ডে মিলের রান্নার বাসনপত্র নিয়ে পালিয়েছে চোরের দল, পাশাপাশি নিয়ে গিয়েছে ছয় বস্তা চাল।

স্কুলের প্রধান শিক্ষক জানান,“আমি সকালে খবর পেয়ে স্কুলে এসে দেখি দরজা-জানলা সব ভেঙে দেওয়া হয়েছে। আলমারি থেকে বেশ কিছু জরুরী নথিপত্র চুরি করে নিয়ে পালিয়েছে। ছোট ছোট বাচ্চাদের মিড ডে মিলের চাল এবং বাসনপত্র নিয়েও পালিয়েছে। আগামী দিনে কিভাবে বাচ্চাদের পেতে মিড-ডে মিলের খাবার দিবো সে নিয়ে দুশ্চিন্তায় রয়েছি।”

স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ,“এই স্কুলে এমন চুরির ঘটনা এই প্রথম নয়, এর আগেও দু-দুবার স্কুলে চুরি হয়েছে, এ নিয়ে তিনবার। আমরা স্কুলের নিরাপত্তা নিয়ে চিন্তিত।” ঘটনার খবর পেয়ে মুরাদপুর প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পৌঁছায় সিউড়ি থানার পুলিশ। তারা সমস্ত বিষয়টি খতিয়ে দেখে এবং তদন্তের আশ্বাস দেয়।