থ্রিডি অ্যানিমেশনের আলোর মন্ডপসজ্জার দেখা মিলবে কালিয়াগঞ্জে

34

তুষার কান্তি বিশ্বাস,উত্তর দিনাজপুরঃ এবারের দীপাবলিতে কালিয়াগঞ্জের নয়া চমক। সেখানে থ্রিডি অ্যানিমেশনের আলোর মন্ডপসজ্জার দেখা মিলবে। এবছর  ৪০ বছরে পা দিতে চলা উত্তর দিনাজপুর জেলার কালিয়াগঞ্জের প্রতিকার কসকো ক্লাবের পক্ষে থেকে থাকছে এই আয়োজন। পূজা উদ্যোক্তাদের দাবি, রাজ্যের প্রথম থ্রিডি অ্যানিমেশনের আলোর মন্ডপসজ্জার দেখা মিলবে এখানেই।

সম্প্রতি দূর্গা পূজায় সোসাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়া যোধপূরের উমেধ প্যালেসের সেই থ্রিডি অ্যানিমেশনের সংস্থার আলোর খেলাই প্রদর্শিত হবে এই পূজো মন্ডপ।শহরের মনমোহন স্কুল প্রাঙ্গনের এখন তাই পূজো ঘিড়ে তুঙ্গে প্রস্তুতি। এবারে প্রতিকার কসকো ক্লাবে শ্যামা পূজো মন্ডপে থিমের মূল শক্তি আলো।মন্ডপের গায়ে থ্রিডি আলোর খেলা দেখাতে মুম্বাই থেকে আসছেন অন্যানিমেশন প্রযুক্তি বিশেষজ্ঞ দল।কয়েকদিন আগে এই সংস্থাই রাজস্থানের যোধপুরের সেই উমেধ প্যালেসের মারিয়েছিল।

এবারে তাদের কালিয়াগঞ্জ নিয়ে আসছে কালিয়াগঞ্জের প্রতিকার কসকো ক্লাব।রাজস্থানের আদলে তৈরি হচ্ছে এই পূজো মন্ডপ।আর বাইরে থ্রিডি অ্যানিমেশন আলোর যাদু খেলা।ভেতরে থাকবে প্রতিমা নির্ভর আলোকসজ্জা। অন্যদিকে মহিশুরের রাজস্থানের গেটের আদোলে আলোর গেটের দেখা মিলবে ।

কসকো ক্লাবের সম্পাদক পিন্টু মোদক জানান, এবারে তিনটি সংস্থা আলোর কাজ করবে। আলোর মধ্য দিয়ে সাজিয়ে তোলা হবে উৎসব অঙ্গন। মালদার একটি সংস্থা থাকছে পূজা মন্ডপের ভেতরে আলোক সজ্জার দায়িত্বে এবং রাস্তার আলোক সজ্জার দায়িত্বে থাকবে নবদ্বীপের শিল্পীরা। এখানে শ্যামা মাকে দেখা যাবে সাবেকি রূপে, এই প্রতিমা নির্মাণ করবে নবদ্বীপের মৃৎ শিল্পী। শ্যামা পূজা উপলক্ষ্যে  আয়োজিত হবে ৪ দিন ব্যাপি সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। থাকবে হস্ত শিল্প প্রদর্শন। তবে সব কিছু ছাপিয়ে যাবে থ্রিডি অ্যানিমেশন আলোর খেলায় মন্ডপসজ্জা। এই খেলার প্রতিটি শো হবে প্রায় ২০ মিনিট অবধি। এবারে তাদের পূজায় মানুষের ঢল নামবে বলে আশা প্রকাশ করছে পূজার উদ্যোগক্তারা।