পুজোয় ব্যবসা মন্দা, আর্থিক অনটনে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা ব্যবসায়ী

699

বিশ্বজিৎ মণ্ডল, মালদাঃ পুজোয় ব্যবসা মন্দা। আর্থিক অনটনে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করল এক ব্যবসায়ী। ঘটনাটি ঘটেছে মালদার হরিশ্চন্দ্রপুর থানার তুলসিহাটা গ্রামে। মৃতদেহ ময়নাতদন্তের পাঠিয়ে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। জানা গিয়েছে, ওই ব্যবসায়ীর নাম অমিত ঢালী (৪৩)। পেশায় কাপড় ব্যবসায়ী।

মৃতের দাদা গোপাল ঢালী জানান, ভাইয়ের স্থানীয় হরিশ্চন্দ্রপুর বাজারে একটি কাপড়ের দোকান রয়েছে দীর্ঘ ১০ বছর ধরে। দোকান খোলার পর থেকে তার দোকানে বেশ ভালোই বেচাকেনা হতো। প্রতিবছর দোকানের ব্যবসা স্বচ্ছলতার জন্য সংসার চলত সচ্ছলভাবে। এই বছরও পুজোর আগে চড়া সুদে দোকানের ব্যবসা চালানোর জন্য স্থানীয় মহাজনদের কাছ থেকে টাকা ঋণ নিয়েছিল। সেই মতো দোকানে জামাকাপড় তুলেছিল বিক্রির জন্য।

কিন্তু সম্প্রতিক টানা বৃষ্টি ও হরিশ্চন্দ্রপুরের আশপাশের এলাকায় বন্যার জলে বহু মানুষ জলবন্দি হয়ে পড়ে। যার ফলে ব্যবসা ও মন্দা যায়। দোকানের জিনিসপত্র দোকানেই থেকে যায়। ফলে পুজোতে ব্যবসার মন্দা দেখা যায়। সেই কারণে সে বেশ কিছুদিন ধরেই আর্থিক অনটনে ভুগছিলেন। এর ওপর বাড়ছিল মহাজনদের টাকার চাপ।

সম্প্রতি বেশ কিছুদিন ধরে সে রাত্রিবেলা তার দোকানে থেকে যাচ্ছিল। বৃহস্পতিবার সকালবেলা তার স্ত্রী রেখা ঢালী দোকানের সামনে আসতেই দেখে দোকানের শাটার খোলা রয়েছে। তড়িঘড়ি শাটার উঠাতেই দেখতে পাই দোকানের মধ্যে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে অমিত ঢালী। ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যায় হরিশ্চন্দ্রপুর থানা পুলিশ। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মালদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়ে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে হরিশ্চন্দ্রপুর থানা পুলিশ।