‘রাজ্য বিপর্যয়’ ঘোষণা কেরলের, সমস্ত জেলায় সতর্কতা

712

ওয়েব ডেস্ক, ৪ ফেব্রুয়ারিঃ করোনা ভাইরাসকে  রাজ্যের বিপর্যয় হিসেবে ঘোষণা করল কেরল সরকার। সোমবার সন্ধ্যায় বলেছেন যে, মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই বিজয়ন এর নির্দেশে এটিকে রাজ্য বিপর্যয় ঘোষণা করা হল।দক্ষিণের এই রাজ্যের ৩ জনের দেহে মিলেছে করোনা ভাইরাসের জীবাণু। চিন থেকে এসেছেন তাঁরা। এরপরই এই রোগকে রাজ্যের বিপর্যয় ঘোষণা করেছে সরকার। চিনের উহান থেকে এই ভাইরাস এসেছে। ওই তিন ব্যক্তির শারীরিক পরীক্ষার পর ইতিবাচক ফল পাওয়ার পরই নড়েচড়ে বসেছে কেরল সরকার।

রাজ্যের স্বাস্থ্যমন্ত্রী কেকে শৈলজা বলেন, ‘‘রোগীদের হাসপাতালের ‘আইসোলেশন ওয়ার্ডে’ রাখা হয়েছে। আতঙ্কের কোনো কারণ নেই। কড়া পর্যবেক্ষণে রাখা হচ্ছে আক্রান্তদের।” পাশাপাশি যাতে দ্রুত এই পরীক্ষার ফল বের করা যায়, তার জন্য রাজ্যেই বিভিন্ন ল্যাবরেটরিতে বিশেষ ব্যবস্থার আয়োজন করা হচ্ছে।

ধীরে ধীরে ভারতেও ক্রমশ প্রকট হচ্ছে করোনার থাবা। করোনাভাইরাসের লক্ষণ নিয়ে এখনও পর্যন্ত কেরলে অন্তত ২,২৩৯ জন চিকিৎসাধীন।তার মধ্যে ৮৪ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।বাকিদের ঘরে পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে। কেরলে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে তিন। এই তৃতীয় ব্যক্তিও চীনের উহানে গিয়েছিলেন। সেখান থেকেই ছড়িয়ে পড়ে করোনাভাইরাস।