পঞ্চম ও ষষ্ঠ শ্রেণীর পড়ুয়াদের ইংরাজি শিক্ষার দক্ষতা বাড়াতে বিশেষ উদ্যাগ নিচ্ছে রাজ্য সরকার

142

ওয়েব ডেস্ক, ৩ জানুয়ারি : ইংরাজি নতুন বছরে শিক্ষা ক্ষেত্রে রাজ্যে সরাকারের নতুন উদ্যাগ। উদ্দেশ্য একটাই সরকার পরিচালিত ও সরকারি অনুদানে চলা স্কুলগুলির পঞ্চম ও ষষ্ঠ শ্রেণির পড়ুয়াদের ইংরেজি শেখার ক্ষেত্রে দক্ষতা বাড়াতে বিশেষ উদ্যোগ রাজ্যের শিক্ষা দফতরের। ইতিমধ্য, বৃহস্পতিবার থেকেই রাজ্যের স্কুলগুলিতে পঞ্চম ও ষষ্ঠ শ্রেণির পড়ুয়াদের জন্য ‘উইংস’ আর ‘ফ্রাগরেন্স’ নামাঙ্কিত দুটি বই বিলি করা হয়েছে। এর মধ্যে ‘উইংস’ পঞ্চম শ্রেণির পড়ুয়াদের জন্য আর ‘ফ্রাগরেন্স’ ষষ্ঠ শ্রেণির পড়ুয়াদের জন্য। রাজ্যের সিলেবাস কমিটির চেয়ারম্যান অভীক মজুমদারের দাবি, ‘বই দুটি ইংরেজির উপরে জ্ঞান বাড়াতে যেমন সাহায্য করবে, তেমনই ইংরেজির ওপর দখল বাড়ানোর ক্ষেত্রেও উপযোগী হবে।’

বাম জমানায় প্রাথমিক থেকে ইংরেজি তুলে দেওয়া নিয়ে রাজ্যজুড়ে বিতর্কের ঝড় বয়ে গিয়েছিল। প্রাথমিক স্কুল স্তরে ইংরেজি ফেরানোর দাবিতে রাজপথে আন্দোলনে নেমেছিল এসইউসি-সহ বেশ কয়েকটি রাজনৈতিক দল ও সংগঠন। শেষ পর্যন্ত অবশ্য রাজ্যে ক্ষমতার পালাবদলের পরে প্রাথমিকে ইংরেজি ফিরিয়ে আনে তৃণমূল সরকার।

গত বছরই রাজ্যের প্রাথমিক স্কুলগুলোতে তৃতীয় ও চতুর্থ শ্রেণির পড়ুয়াদের ইংরেজি শেখার জন্য বিশেষ বই চালু হয়েছিল। আর তাতে ব্যাপক সাড়া পেয়েই চলতি শিক্ষা বর্ষে পঞ্চম ও ষষ্ঠ শ্রেণির পড়ুয়াদের জন্য ইংরেজি শেখার জন্য বিশেষ বই বিলি করার সিদ্ধান্ত নেয় রাজ্যের শিক্ষা দফতর।

বিশেষ ইংরেজি শেখার বই প্রণয়নের দায়িত্বে থাকা সিলেবাস কমিটির চেয়ারম্যান অভীক মজুমদারের কথায়, ‘ইংরেজি বিষয়ের ওপর থেকে পড়ুয়াদের ভীতি দূর করতে প্রাথমিকস্তর থেকেই পড়ুয়াদের দক্ষ করে তোলার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। ‘উইংস’ আর ‘ফ্রাগরেন্স’-এ এমন বেশ কিছু অধ্যায় অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে, যে গুলি প্রশ্নভিত্তিক। মনসংযোগ করে অধ্যয়ন করলে পড়ুয়াদের ইংরেজি জ্ঞান অনেকটাই বাড়বে।