শিশু মৃত্যুকে কেন্দ্র করে তুমুল উত্তেজনা হাসপাতালের মাতৃমা বিভাগের সামনে

101

বিশ্বজিৎ মণ্ডল, মালদাঃ একদিকে করোনা অতিমারি জের সারা জেলা জুড়ে চলছে লকডাউন। আর এই লকডাউনের মাঝে শিশু মৃত্যুকে কেন্দ্র করে তুমুল উত্তেজনা মালদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মাতৃমা বিভাগের সামনে। শুক্রবার রাতে ওই ঘটনায় মৃত শিশুর পরিবারের লোকেরা বিক্ষোভে ফেটে পড়েন।

তাদের অভিযোগ ডেলিভারি হয়ে যাওয়ার ৮ ঘন্টা পরে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানায় তাদের শিশু মারা গিয়েছে। এতে তাদের ক্ষোভ উগরে দেয় তাদের অভিযোগ যখন তাদের রোগীকে ডেলিভারি করার জন্য নিয়ে যাওয়া হয় তখন তাদেরকে জানানো হয়নি।

পাশাপাশি তাদের রোগীকে ডেলিভারি নিয়ে যাওয়া হয় দুপুর ১২ টা নিয়ে যাওয়ার সময় তাদেরকে জানানো হয়নি তারপর দীর্ঘ কয়েক ঘন্টা পর তাদেরকে বলা হয় তাদের শিশু মারা গেছে বলে তাদের অভিযোগ। চিকিৎসার গাফিলতিতে এই তাদের শিশু মারা গেছে। পরিস্থিতি সামাল দিতে ইংরেজবাজার থানার বিশাল পুলিশবাহিনী মালদা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে মাতৃমা বিভাগে যান।

জানা গেছে, গত বৃহস্পতিবার ইংরেজবাজার শহরের গয়েশ পুরের বাসিন্দা শামীম হোসেন তার স্ত্রী নাসরিন পারভীন এর প্রসব যন্ত্রণা নিয়ে মালদা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি হয়। তারপর শুক্রবার তাকে ডেলিভারি করার জন্য চিকিৎসকরা ওটি তে নিয়ে যায়। তারপরেই মৃত শিশুর ঘটনা জানা যায়। যদিও এই বিষয়ে মৌখিকভাবে জানালেও এখনও পর্যন্ত লিখিত ভাবে অভিযোগ দায়ের করেন এই মৃত শিশুর পরিবারের লোকেরা।