প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রীকে ‘রাজীব ফিরোজ খান’ বলে উল্লেখ করলেন বিজেপি সাংসদ

235

ওয়েব ডেস্ক, ৪ ফেব্রুয়ারিঃ সংসদে দাঁড়িয়ে প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী রাজীব গান্ধীকে ‘রাজীব ফিরোজ খান’ বলে বিতর্কে জড়ালেন বিজেপি সাংসদ প্রবেশ ভার্মা।সোমবার লোকসভায় বলতে উঠে শাহিনবাগ প্রসঙ্গে বিরোধীদের আক্রমণ করেন তিনি। তখনই রাজীব গান্ধীকে রাজীব ফিরোজ খান বলে উল্লেখ করেন তিনি।

গতকাল বাজেট অধিবেশন শুরুর সময় রাষ্ট্রপতির ভাষণে মোশন অফ থ্যাঙ্কস-এ বিতর্ক শুরু করে ভার্মা এই দাবি প্রচারের চেষ্টা করেছিলেন যে ইন্দিরা গান্ধী একজন মুসলমানকে বিয়ে করেছিলেন এবং তাই গান্ধী পরিবার মুসলিম, কিন্তু ধর্মকে আড়াল করে চলেছে। আদতে ইন্দিরা নেহেরু ফিরোজ গান্ধীকে বিয়ে করেছিলেন। ফিরোজ এলাহাবাদের পার্সি-জোরোস্ট্রিয়ান পরিবারের।

মোদী সরকার সিএএ-কে বাতিল করবে না বলে প্রতিজ্ঞা করে তিনি বলেন, ‘এটি রাজীব ফিরোজ খানের সরকার নয়। এটি নরেন্দ্র মোদীর সরকার।’ সম্ভবতঃ রাজীব গান্ধী সরকার ১৯৮৫ সালে শাহ বানো মামলায় সুপ্রিমকোর্টের রায় বাতিল করার জন্য একটি আইন করেছিলেন। তবে এর কারণ হিসাবে পরবেশ দাবি করতে চাইলেন যে রাজীব নিজেই মুসলমান ছিলেন।

রাজীব গান্ধীকে রাজীব ফিরোজ খান বলে প্রবেশ ভার্মা কংগ্রেসকে হিন্দুদের থেকে দূরে সরানোর চেষ্টা করলেন বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। ইন্দিরা গান্ধীর স্বামী ফিরোজ গান্ধীর আগের পদবি ছিল খান। পরে গান্ধীজি তাঁকে গান্ধী পদবি প্রদান করেন। এর পরই ফিরোজ জাহাঙ্গির খান হয়ে যান ফিরোজ গান্ধী। সেই পদবি এখনো ব্যবহার করে গান্ধী পরিবার। যদিও বিজেপি-সহ হিন্দুত্ববাদীদের দাবি, সংখ্যাগরিষ্ঠ হিন্দুদের থেকে নিজেদের ধর্মীয় পরিচয় লুকাতেই গান্ধী পদবি ব্যবহার করেন তাঁরা।১৯৫২ থেকে টানা ৮ বছর রায় বেরিলির সাংসদ ছিলেন ফিরোজ গান্ধী। ১৯৬০ সালের সেপ্টেম্বরে তাঁর মৃত্যু হয়। ইলাহাবাদের এক গোরস্থানে অনাড়ম্বরভাবে পড়ে রয়েছে রাহুল গান্ধীর ঠাকুরদার সমাধি।

এর আগেও কেজরিওয়ালকে জঙ্গি আখ্যা দেওয়া ছাড়াও শাহীনবাগ নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করে খবরে এসেছিলেন পরবেশ ভর্মা।