বৌমাকে ধর্ষণের অভিযোগ শ্বশুরের বিরুদ্ধে,পলাতক অভিযুক্ত

1379

শ‍্যাম বিশ্বাস, উওর ২৪ পরগনাঃ রক্ষকেই ভক্ষক। প্রতিবন্ধী মূক ও বধির বৌমাকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠলো শ্বশুর এর বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে বসিরহাট মহাকুমার মিনাখা ব্লকের হাড়োয়া থানার গড় কুয়াটি গ্রামে। ওই ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে এলাকায়। ওই ঘটনার পর প্রতিবন্ধী মূক ও বধির গৃহবধুর পরিবারের লোকজন হাড়োয়া থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযুক্ত শ্বশুর পলাতক। এই ঘটনার পূর্ণাঙ্গ তদন্ত শুরু করেছে হাড়োয়া থানার পুলিশ।

অভিযোগ, কর্মসূত্রে শাশুড়ি গৌর দাস কলকাতায় থাকেন। সেই সুযোগ নিয়ে নির্যাতিতা বৌমাকে দিনের-পর-দিন কু প্রস্তাব দিতেন অভিযুক্ত শ্বশুর শম্ভু দাস। সেই প্রস্তাবে রাজি না প্রতিবন্ধী মূক ও বধির বৌমাকে গত ১৯ অক্টোবর রাতে জোরপূর্বক একাধিকবার ধর্ষণ করে শ্বশুর। কেউ যাতে তার এই কু কীত্তির কথা যাতে না পারে তারজন্য বৌমাকে প্রাণনাশের হুমকিও দেয় অভিযুক্ত শ্বশুর। পরে ওই ঘটনা নির্যাতিতার পরিবারের লোকজনকে জানালে পরে হাড়োয়া থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের নির্যাতিতার পরিবার।

অভিযোগ, চার মাস আগে একই ভাবে ধর্ষন করে সেই নিয়ে গ্রামের বাসিন্দারা এবং সালিশ সভা করে একটি মুচলেকা করানো হয়েছিল। তারপর আবার নতুন করে এই ঘটনা নির্যাতিতাকে মেডিকেল চেকআপের জন্য বসিরহাট জেলা হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।  ওই ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে হাড়োয়া থানার পুলিশ। ওই ঘটনার পর অভিযুক্ত শ্বশুর শম্ভু দাস পলাতক। ওই ঘটনার পূর্ণাঙ্গ তদন্ত শুরু করেছে হাড়োয়া থানার পুলিশ।