করোনা ভাইরাসের থাবা থেকে ছাড় পায়নি গ্রীষ্মকালীন সবজি উৎপন্নকারী কৃষকদের বাজার

42

আব্দুল হাই, বাঁকুড়াঃ দেশের করোনা পরিস্থিতি দিন দিন ভয়ঙ্কর হচ্ছে। করোনা সংক্রমণ রুখতে সরকারের পক্ষ থেকে একাধিক পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে। করোনা মোকাবিলার জন্য বর্তমানে পশ্চিমবঙ্গে জুড়ে চলছে আংশিক লকডাউন। দোকান বাজার হাট সমস্ত কিছুই সকাল সাতটা টা থেকে দশটা এবং বিকেল পাঁচটা থেকে সন্ধ্যা সাতটা পর্যন্ত খোলা রয়েছে। আর এতেই ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন গ্রীষ্ম কালীন সবজি উৎপাদন কারী কৃষকেরা।

বাঁকুড়া জেলার মেজিয়া ব্লকের  রামচন্দ্রপুর অঞ্চলের তেলেণ্ডা, মানার মতো গ্রামগুলি থেকে প্রচুর পরিমাণে শশা, উচ্ছে, ঝিঙে করোলা, কুমড়োর মত গ্রীষ্মকালীন সবজি উৎপন্ন হয়। আংশিক লকডাউন চলায় এই কয়েকদিনে তাদের অবস্থা শোচনীয় হয়ে গেছে। তাদের উৎপাদিত সবজির বিক্রি অনেক কমেছে এবং আংশিক লকডাউনের ভয়ে অনেক সময় জলের দামে সবজিগুলো আড়ৎদারকে দিতে হচ্ছে। বিপুল পরিমাণে আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হয়েছেন। উল্লেখ্য এই গ্রাম গুলির 80% মানুষ কৃষিকাজ করেই জীবন জীবিকা নির্বাহ করে।আগামী দিনে কিভাবে সংসার চালাতেন তা ভেবে আতঙ্কিত ওই কৃষক পরিবারগুলি।