মমতাকে মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে সরাতে মামলা দায়ের সুপ্রিম কোর্টে

4056

ওয়েব ডেস্ক, ৬ জানুয়ারি: মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে সরানোর জন্য মামলা দায়ের করা হয়েছে সুপ্রিম কোর্টে। ভারাকি নামে এক সাংবাদিক শীর্ষ আদালতে এই আবেদন করেছেন বলে জানা গিয়েছে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে বরখাস্ত করার জন্য, সুপ্রিম কোর্ট যাতে পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়কে নির্দেশ দেয়, সেই আবেদন জানানো হয়েছে।

নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের প্রতিবাদে গোড়া থেকেই সোচ্চার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ১৯ ডিসেম্বর এক জনসভায় বলেন, বিজেপির যদি সাহস থাকে, তাহলে রাষ্ট্রপুঞ্জের নজরদারিতে নাগরিকত্ব আইন নিয়ে গণভোট করে দেখাক। এই ভোটে বিজেপি হেরে গেলে তাহলে তাদের সরকার থেকে সরে যেতে হবে।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে উদ্দেশ্য করে মমতা আরও বলে ছিলেন ,আপনাদের সংখ্যাগরিষ্ঠতা আছে বলেই যা খুশি করতে পারেন না। সবাইকে আপনারা ভয় দেখিয়ে রেখেছেন। মমতার এই বক্তব্য ভারতীয় সংবিধানের বিরোধী বলে অভিযোগ করেছেন সাংবাদিক ভারাকি। তাঁর আবেদনে বলা হয়েছে যে মমতার এই বক্তব্যেই স্পষ্ট যে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী দেশের অখণ্ডতা ও সার্বভৌমত্বে বিশ্বাস করেন না।

যে শপথ নিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় মুখ্যমন্ত্রীর আসনে বসেছিলেন, এই বক্তব্যের ফলে সেই শপথ বাক্য তিনি খণ্ডন করেছেন বলে অভিযোগ করা হয়েছে। জনসভায় মমতার বক্তব্য সংবিধান বিরোধী বলে অভিযোগ করেছেন ভারাকি।

কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে করা এই মন্তব্যকেই সাংবাদিক ভারাকি ভারতীয় সংবিধানের বিরোধী বলে অভিযোগের সুর চড়িয়েছেন। যার কারণে মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে মমতাকে বরখাস্ত করার কথা শীর্ষ আদালতে জানিয়েছেন। তাঁর অভিযোগ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দেশের অখণ্ডতা ও সার্বভৌমত্বে বিশ্বাস করেন না। মুখ্যমন্ত্রীর আসনে যে শপথ বাক্য উচ্চারণ করে তিনি বসেছিলেন সেই বাক্যকে তিনি খণ্ডিত করেছেন।