ভবানীপুরের ভোটার হলেন তৃণমূলের ভোটকৌশলী প্রশান্ত কিশোর

143

ওয়েব ডেস্ক, ২৬সেপ্টেম্বরঃ ভবানীপুরের ভোটার হলেন তৃণমূলের ভোটকৌশলী প্রশান্ত কিশোর। ভোটার তালিকা টুইট করে বিজেপির কটাক্ষ, আর বহিরাগত নন প্রশান্ত কিশোর। তিনি এখন ঘরের ছেলে। আইন অনুযায়ী ভারতের যে কোনও জায়গার ভোটার হতে কারও বাধা নেই বলে জানিয়েছে তৃণমূল।

২০১৯ সালে লোকসভা ভোটে খারাপ ফলের পর ভোটকৌশলী প্রশান্ত কিশোরের সঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধে তৃণমূল। বিধানসভা ভোটে ডবল সেঞ্চুরি হাঁকিয়ে প্রত্যাবর্তন করেন মমতা। সেই প্রশান্তের সংস্থা আইপ্যাকের সঙ্গে চুক্তি ২০২৬ সাল পর্যন্ত নবীকরণ করেছে তৃণমূল। এখন গোয়া ও ত্রিপুরায় তৃণমূলের সম্ভাবনার জমি তৈরি করছে বিহারীবাবুর দলবল।

বিভিন্ন রাজ্যে কাজ করলেও ভবানীপুরের ভোটার হিসেবে নাম তুললেন আদতে বিহারের বাসিন্দা পিকে। গত বিধানসভা ভোটে ভবানীপুর কেন্দ্রের ভোটার তালিকায় নাম উঠেছিল প্রশান্তের। ৭৩ নম্বর ওয়ার্ডের ২২ পার্টে, সেন্ট হেলেন স্কুলে ভোটকেন্দ্র ছিল তাঁর। ভোটও দিয়েছেন। সূত্রের খবর, কর্মসূত্রে দু’বছর ধরে কলকাতায় থাকছেন পিকে। এর আগেও অন্য রাজ্যের ভোটার তালিকায় নাম তুলেছিলেন।

ভবানীপুরের উপনির্বাচনের মুখে এই হাতিয়ার নিয়ে আক্রমণ শানাতে দেরি করেনি বিজেপি। প্রিয়াঙ্কা টিবরেওয়ালের নির্বাচনী এজেন্ট সজল ঘোষের খোঁচা, আর বহিরাগত নয়, এবার একদম ঘরের ছেলে।