নাগরিকত্ব আইন এবং এনআরসির বিরুদ্ধে রাজ্যজুড়ে প্রতিবাদের ধার বাড়াচ্ছে তৃণমূল কংগ্রেস

51

কলকাতা, ২৮ ডিসেম্বরঃ নাগরিকত্ব আইন এবং এনআরসির বিরুদ্ধে প্রতিবাদের ধার বাড়াচ্ছে তৃণমূল কংগ্রেস। শনিবার কলকাতার পাশাপাশি গোটা রাজ্যেই ধর্নায় বসেছেন তৃণমূলের মন্ত্রী, বিধায়করা। রাজ্যের সবকটি বিধানসভাতেই ধর্নায় বসেন বিধায়করা। বেলা চারটে পর্যন্ত এই ধর্না কর্মসূচি চলবে বলে তৃণমূল সূত্রে খবর।

এদিন উত্তর কলকাতার শ্যামবাজারে ধর্নায় রয়েছেন মন্ত্রী শশী পাঁজা। রয়েছেন দলের নেতা-কর্মীরাও। সখের বাজার এলাকার ধর্নায় বসেছেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়, খিদিরপুরে কলকাতার মেয়র ফিরহাদ হাকিম, রাসবিহারীতে হাজির ছিলেন বিদ্যুৎমন্ত্রী শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়।

তাঁদের অভিযোগ, বিজেপি ধর্মের ভিত্তিতে দেশে ভেদাভেদ তৈরি করছে। মেয়র ফিরহাদ হাকিম বলেন, ‘ধর্মের নামে রাজনীতি করছে বিজেপি। কিন্তু আমাদের নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এই রাজনীতি মানেন না। তাঁর কাছে হিন্দু, মুসলিম, শিখ, জৈন সকলেই সমান। বিজেপির উদ্দেশ্য বাংলায় সফল হবে না।’

অন্যদিকে জেলাতেও চলছে তৃণমূলের ধর্না কর্মসূচি। হাজির ছিলেন মন্ত্রী-বিধায়করা। পূর্ব বর্ধমানের পূর্বস্থলী দক্ষিণ বিধানসভা কেন্দ্রের ধর্না মঞ্চে হাজির ছিলেন মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ। আসানসোলের ধর্না মঞ্চ থেকে মন্ত্রী মলয় ঘটক বলেন, ‘আম নাগরিক মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে রয়েছেন। এই ধর্নাই তার বড় প্রমাণ।’