ভয়াবহ ভুমিকম্পে কাঁপল তুরস্ক, মৃত্যু কমপক্ষে ১৮

73

ওয়েব ডেস্ক, ২৫ জানুয়ারিঃ ভারতীয় সময় অনুযায়ী তা ভোর, কিন্তু স্থানীয় সময় তখন সেখানে শুক্রবার রাত ৮টা ৫৫ মিনিট। হঠাৎই প্রবল ভাবে দুলে উঠল পায়ের তলার মাটি। চোখের সামনে ভেঙে পড়তে লাগল একের পর এক বাড়ি। তুরস্কের ইলাজিগের সিভরাইস জেলায় কম্পনটি আঘাত হানে। যার জেরে মৃত্যু হয় কমপক্ষে ১৮ জনের

শুক্রবার রাত ৮ টা বেজে ৫৫ মিমিটে তুরস্কের ইলাজিগের সিভরাইস  জেলায় কম্পনটি আঘাত হানে। যার জেরে মৃত্যু হয় কমপক্ষে ১৮ জনের। রিখটার স্কেলে এই ভূকম্পনের মাত্রা ছিল ৬.৮। ভূমিকম্পের ক্ষয়ক্ষতির কথা স্বীকার করে, সে দেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সুলেমান সোইলু বলেছেন, কম্পনের ফলে বেশকিছু বিল্ডিং ধসে পড়েছে এবং ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। যে ১৮ জন মারা গিয়েছে, তাঁদের মধ্যে ইলাজিগ প্রদেশের ৮ জন, মালাতিয়াযর ৬ জন বাসিন্দা রয়েছে বলে জানা গিয়েছে। ভূমিকমপের পরেই ঘটনাস্থলে পৌঁছায় বিশাল উদ্ধারকারী দল। তাঁরা ভেঙে পড়া বিল্ডিং-এর মাঝে কেউ আটকে পড়েছিল কিনা তা খতিয়ে দেখে। জানা গিয়েছে, ভূমিকম্পের পড়ে প্রায় ৬০ টি আফটার শক পাওয়া গিয়েছে।

অন্যদিকে ভূমিকম্পের ক্ষয়ক্ষতির কথা স্বীকার করে, সে দেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সুলেমান সোইলু বলেছেন, কম্পনের ফলে বেশকিছু বিল্ডিং ধসে পড়েছে এবং ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। যে ২২ জন মারা গিয়েছে, তাঁদের মধ্যে ইলাজিগ প্রদেশের ৮ জন, মালাতিয়াযর ৬ জন বাসিন্দা রয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

এক সংবাদ মাধ্যমে বিভিন্ন টিভি চ্যানেলগুলি দেখিয়েছে, ভূমিকম্পের সময় আতঙ্কিত মানুশজন প্রাণ হাতে করে নিয়ে পালাচ্ছে। আর একটি বাড়ির ছাদেও সে সময় আগুন লেগে যায় বলে খবর। ভূমিকমপের পরেই ঘটনাস্থলে পৌঁছায় বিশাল উদ্ধারকারী দল। তাঁরা ভেঙে পড়া বিল্ডিং-এর মাঝে কেউ আটকে পড়েছিল কিনা তা খতিয়ে দেখে।