সিএএ-র প্রসঙ্গে মুখ খুললেন বিরাট কোহলি

3091

ওয়েব ডেস্ক, ৫ জানুয়ারিঃ ক্যাব আইনে রূপান্তরিত হওয়ার পর থেকেই প্রতিবাদে উত্তাল অসম। আজ  গুয়াহাটিতে শ্রীলঙ্কার সঙ্গে প্রথম টি-২০ ম্যাচ খেলতে নামছে টিম ইন্ডিয়া।তার আগে কোহলি জানালেন সিএএ ইস্যু নিয়ে তাঁর কী মত? তবে সিএএ নিয়ে কোনও মন্তব্য করতে রাজি নন ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলি। সাংবাদিকদের সামনে সাফ জানিয়ে দিলেন  কোহলি।

ভারত অধিনায়ক বলেন, আমি এই বিষয়ে দায়িত্বজ্ঞানহীন হতে পারব না। আমাদের সে বিষয়ে মন্তব্য করা উচিত, যে বিষয়ে জ্ঞান আছে। দু’ তরফের কথা ভালো করে শোনা দরকার। আগে আমি এই আইনের ওপর লেখা-পড়া করে নিই। আশপাশে কী ঘটছে এবং কেন ঘটছে, ভালো করে বুঝে নিই, তারপর আমার মতামত জানাব।

প্রসঙ্গত, ২০১৬ সালে নোট-বন্দীর সিদ্ধান্তকে ভারতীয় রাজনীতির ইতিহাসে যুগান্তকারী বলেছিলেন বিরাট কোহলি। তবে এবার সিএএ ইস্যুতে অহেতুক কোনও বিতর্কে জড়াতে রাজি নন কোহলি। তিনি বলেন, আপনি এক কথা বলেন, আর অন্য জন বলবে অন্য কথা। তাই আমি এমন কোনও বিষয়ের মধ্যে জড়াতে চাই না, যেটা নিয়ে আমার কোনও জ্ঞান নেই। আর না জেনে-শুনে কোনও বিষয়ে মন্তব্য করাটাও ঠিক নয়।

শনিবার গুয়াহাটির নিরাপত্তা নিয়ে সন্তোষ প্রকাশ করে কোহলি বলেছেন, শহর এক্কেবারে নিরাপদ। আমরা রাস্তাঘাটে কোনও বিশৃঙ্খলা দেখতে পাইনি। এদিকে, অসম ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের সেক্রেটারি দেবজিত সাইকিয়া সাফ জানিয়েছেন, রাপিড অ্যাকশন ফোর্স মাঠের নিরাপত্তার দায়িত্বে।

দেবজিত সাইকিয়া সংবাদ সংস্থা পিটিআইকে জানান, স্টেডিয়ামে পোস্টার নিয়ে ঢোকা যাবে না। শুধু তাই নয়। কোনও ধরনের মার্কার পেন নিয়েও দর্শকরা সেখানে প্রবেশ করতে পারবেন না। এছাড়া দর্শকদের রুমাল কিংবা তোয়ালে নিয়ে প্রবেশ নিষিদ্ধ। কেননা সিএএ বিরোধী আন্দোলনে বেশির ভাগ প্রতিবাদী অসমীয়া স্কার্ফ হাতে পথে নেমেছিলেন।