শ্রদ্ধার সাথে পুলিশ শহীদ দিবস পালিত কোচবিহারে

197

কোচবিহার, ২১ অক্টোবরঃ সোমবার কোচবিহারে পালিত হল পুলিশ শহীদ স্মৃতি দিবস। এদিন গোটা দেশ জুড়ে বিশেষ শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করা হয় পুলিশ শহিদদের। ২১ অক্টোবর সারা দেশ জুড়ে পালিত হয় দিবসটি।

১৯৫৯ সালে এই দিনে চিনা সৈন্যবাহিনীর আক্রমণে শহিদ হয়েছিলেন ১০ জন ভারতীয় পুলিশকর্মী। তাঁদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে ১৯৬০ সালে সরকারিভাবে এই স্মরণ দিবস পালিত হয়। ২০১২ সাল থেকে জাতীয় স্তরে শুরু হয় এই দিনটির উদযাপন।

১৯৫৯ সালের ২১ অক্টোবর উত্তর-পূর্ব লাদাখের উষ্ণ প্রস্রবণ অঞ্চলে হারিয়ে যাওয়া একটি তল্লাশি দলের খোঁজে অভিযান চালাচ্ছিল করম সিং-এর নেতৃত্বে একদল পুলিশবাহিনী। তখনই চিনা সৈন্যদল তাঁদের আক্রমণ করে। অতর্কিত এই আক্রমণের ঘটনায় ১০ জন পুলিশকর্মী শহিদ হন। ৭ জনকে বন্দি করে নিয়ে যায় চিনা সৈন্যরা। বাকিরা পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়েছিলেন। ৩ সপ্তাহ পরে চিন ওই ১০ জন শহিদ পুলিশকর্মীর মরদেহ ফিরিয়ে দেয়।

পতাকা উত্তোলন কোচবিহার পুলিশ লাইনে

পরের বছর, ১৯৬০ সালের জানুয়ারিতে, ২১ অক্টোবর তারিখটিকে পুলিশ শহীদ স্মৃতি দিবস বলে ঘোষণা করা হয়। লাদাখে শহিদ হওয়া পুলিশকর্মী এবং কর্তব্যরত অবস্থায় নিহত সকল পুলিশকর্মীকে শ্রদ্ধা জানাতে উৎসর্গ করা হয় এই দিনটি। সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়, লাদাখে একটি স্মৃতিস্তম্ভ নির্মাণ করা হবে।

২০১২ সাল থেকে এই দিনটি সারা দেশ জুড়ে পুলিশ শহীদ স্মৃতি দিবস হিসাবে পালিত হয়ে আসছে। সারা ভারতের পুলিশ ইউনিটগুলি এ দিন জাতি এবং সমাজের নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করতে গিয়ে জীবন উৎসর্গ করা সমস্ত শহিদ পুলিশকর্মীর প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করে।

পুলিশে আধিকারিকদের শহিদবেদীতে শ্রদ্ধা জ্ঞাপন

আজ কোচবিহার পুলিশ লাইনে পুলিশ শহীদ দিবসে সমস্ত শহিদ পুলিশকর্মীর প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেন জেলার পুলিশ সুপার সন্তোষ নিম্বালকর, জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মহম্মদ সানা আকতার সহ জেলার  অন্যান্য পুলিশ আধিকারিকরা।