দ্বিতীয় হুগলি সেতুতে লরির ধাক্কায় প্রাণ গেল হাওড়ার যুবতীর

0
31

খবরিয়া ২৪ নিউজ ডেস্ক, ৫ অগাস্ট, কলকাতাঃ বেহালায় লরির ধাক্কায় শিশু মৃত্যুর ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতেই শুক্রবার রাতে পথ দুর্ঘটনায় প্রাণ হারালেন হাওড়ার এক যুবতী। মৃতের নাম সুনন্দা দাস। কলকাতার ধর্মতলা এলাকার এক হোটেলের কর্মী ছিলেন তিনি।

জানা গিয়েছে, হাওড়ার নেতাজি সুভাষ রোডের বাসিন্দা সুনন্দা গতকাল রাত ১১টা নাগাদ স্কুটি চালিয়ে দ্বিতীয় হুগলি সেতু দিয়ে বাড়ি ফিরছিলেন। ফ্লাইওভারে ওঠার মুখে পিছন থেকে একটি লরি এসে স্কুটিতে ধাক্কা মারে। লরির ধাক্কায় সুনন্দার শরীরের একাংশ গাড়ির তলায় পিষে যায়।   সঙ্গে সঙ্গে ঘটনাস্থলে পৌঁছন কর্তব্যরত পুলিশকর্মীরা। তাঁকে উদ্ধার করে এসএসকেএম হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে সেখানকার চিকিৎসকেরা সুনন্দাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।

পুলিশ সূত্রে খবর, হোটেল থেকে বাড়ি ফেরার পথে সুনন্দা তাঁর এক সহকর্মীকে আলিপুরে নামিয়েছিলেন। তার পর খিদিরপুর হয়ে দ্বিতীয় হুগলি সেতুতে যাচ্ছিলেন তিনি। পুলিশ ঘাতক লরিটিকে আটক করলেও ঘটনাস্থল থেকে পলাতক চালক। তার সন্ধানে তল্লাশি চালাচ্ছে পুলিশ।

গতকাল ভোরে লরির ধাক্কায় মৃত্যু হয় বরিশা হাইস্কুলের দ্বিতীয় শ্রেণির ছাত্র সৌরনীল সরকারের। ছাত্র মৃত্যুকে কেন্দ্র করে রণক্ষেত্র চেহারা নেয় বেহালা। শুক্রবার সন্ধ্যার পর মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ফোন করেছিলেন সৌরনীলের পরিবারকে। পরিবারকে সমস্ত রকম সহায়তার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন মমতা।

সৌরনীলের বাবার চিকিৎসার ভারও রাজ্য সরকার নিয়েছে বলে জানা গিয়েছে। তার ২৪ ঘণ্টা কাটতে না কাটতেই ফের এমন ঘটনায় পথ নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন অনেকে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here